English ছবি ভিডিও
Bangla Font Problem?
শেষ আপডেট ৫:১৯ অপরাহ্ণ
ঢাকা, মঙ্গলবার , ৪ঠা আগস্ট, ২০২০ ইং , ২০শে শ্রাবণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

বিভিন্ন দেশে ঈদ উৎসবে করোনার ছায়া

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

Last updated on মে ২৭, ২০২০ at ০১:০০ অপরাহ্ণ

সৌদি আরবসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে আজ রোববার পবিত্র ঈদুল ফিতর উদযাপিত হচ্ছে। এবারের ঈদ উদযাপনে পড়েছে করোনার ছায়া। এ ভাইরাস থেকে নিরাপদ থাকতে সুরক্ষা ও সামাজিক দূরত্বের বিষয়টিকে গুরুত্ব দিয়ে অন্য রকমভাবে উদ্‌যাপন করা হচ্ছে ঈদ।

অনেক দেশে করোনা ঠেকাতে চলমান লকডাউনের মধ্যেই ঈদ উদ্‌যাপন করা হচ্ছে। আবার করোনা সংক্রমণের উচ্চ ঝুঁকি থাকা সত্ত্বেও কোনো কোনো দেশে বিধি–নিষেধ শিথিল করা হয়েছে।

ধর্মপ্রাণ মুসলমানেরা এক মাসের সিয়াম সাধনার পর ঈদুল ফিতর উদযাপন করে। ঈদের দিন সকালে তাঁরা খুতবায় অংশ নেন, জামায়াতে নামাজ আদায় করেন, নামাজ শেষে হাসিমুখে পরস্পর কোলাকুলি করেন। ঈদ উপলক্ষে ছোট–বড় সবাই নতুন পোশাক পরে। বাড়ি বাড়ি রান্না হয় মজাদার সব খাবার। ধনী–গরিব নির্বিশেষে সবাই এই উৎসবে শামিল হয়।

কিন্তু এবারের পরিস্থিতি একেবারেই ভিন্ন। বিশ্বজুড়ে করোনার সংক্রমণ ও মৃত্যু বেড়েই চলছে। করোনা ঠেকাতে অনেক দেশেই লকডাউন চলছে। পবিত্র রমজান মাসজুড়ে করোনার বিধিনিষেধের মধ্যেই মুসলমানেরা সিয়াম সাধনা করেছেন। বিভিন্ন দেশে ঈদুল ফিতরের উৎসবেও কম–বেশি বিধিনিষেধ থাকছে।

সৌদি আরব, মিসর, তুরস্ক, সিরিয়া করোনার বিস্তার ঠেকাতে ঈদে গা ঘেঁষে জামাতে নামাজ আদায়সহ গণজমায়েতের মতো ধর্মীয় আনুষ্ঠানিকতা নিষিদ্ধ করেছে।

সৌদি আরবে করোনার সংক্রমণ বৃদ্ধির পরিপ্রক্ষিতে শনিবার থেকে পাঁচ দিনের কারফিউ শুরু হয়েছে। দিন–রাতজুড়ে এই কারফিউ চলবে।
গতকাল জারি করা সৌদির রাজকীয় ডিক্রিতে বলা হয়, মক্কা ও মদিনার দুটি পবিত্র মসজিদে মুসল্লি ছাড়াই ঈদের নামাজ হবে।
জেরুজালেমের পবিত্র আল আকসা মসজিদ ঈদের পর মুসল্লিদের জন্য খুলে দেওয়া হবে।

লেবাননের সুন্নি ধর্মীয় কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, শুক্রবারের জুমার নামাজের জন্য কেবল মসজিদ খোলা হবে। মসজিদে প্রবেশের আগে মুসল্লিদের শরীরের তাপমাত্রা পরিমাপ করা হবে। স্যানিটাইজার ব্যবহার করতে হবে।

ইন্দোনেশিয়া, পাকিস্তান, মালয়েশিয়া ও আফগানিস্তান ঈদের কেনাকাটা উপলক্ষে ভিড় লক্ষ করা যায়। এ সময় করোনার স্বাস্থ্যবিধি উপেক্ষিত হয়।

যদিও ইউরোপ–আমেরিকার চেয়ে এশিয়া ও মধ্যপ্রাচ্যে করোনার সংক্রমণ–প্রাণহানি কম। তবে এশিয়া ও মধ্যপ্রাচ্যে করোনার সংক্রমণ বাড়ছে।
ইরান তাদের নাগরিকদের ঈদের সময় ভ্রমণ এড়িয়ে চলার আহ্বান জানিয়েছে। করোনার ব্যাপক সংক্রমণের মুখে গত মার্চে ইরানে নানা ক্ষেত্রে বিধিনিষেধ জারি করে। তবে সম্প্রতি এই বিধিনিষেধ শিথিল করা হয়।

ইরানের স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, স্বাস্থ্যবিধি না মানার কারণে নতুন করে করোনার সংক্রমণের ঢেউ আসুক, তা তাঁরা চান না। তাই এ ব্যাপারে জনগণকে সতর্ক করেছেন তিনি।

করোনা–সংক্রমিত মধ্যপ্রাচ্যের অন্যান্য দেশেও ঈদ উদযাপনে সতর্কতা অনুসরণ করা হচ্ছে।
সব মিলিয়ে এবারের ঈদ উৎসবজুড়ে থাকছে করোনার কালো ছায়া।


জনপ্রিয় বিষয় সমূহ:

Right Menu Icon